Join 41,747 users and earn money for participation

অবশেষে মারা গেল সেই পিচ্চি শাহিন, মৃত্যুর আগে স্পষ্ট চিৎকার দিয়ে কিছু বলতে চেয়েছিলো ছেলেটি!

কিন্তু ভেতরে ধীরে ধীরে নিথর হয়ে যাওয়া শরীরের সমস্ত শক্তি দিয়েও সে বলতে পারেনি,সে হয়তো বলতে চেয়েছিলো এই দেশকে ,আমি অভিশাপ দিচ্ছি,সে হয়তো স্রষ্টাকে জিজ্ঞেস করতে চেয়েছিলো,পৃথিবীতে পাঠাবেই যখন, এই রকম বিচার না পাওয়া দেশে কেন পাঠিয়েছো।

★ যে দেশে ভিক্ষুকের টাকা ছিনতাই হয়। ★যে দেশে প্রকাশ্যে রাস্তায় ফিল্মি স্টাইলে মানুষকে কুপিয়ে মারা হয়। ★ যে দেশে প্রতিদিন কোথাও না কোথাও ধর্ষণ হচ্ছে শিশু থেকে বৃদ্ধা। ★ যে দেশে প্রতিটি খাবার ভেজাল মিশ্রিত। ★ যে দেশে শিক্ষকের কাছে ছাত্রী নিরাপদ নয়।

এ কেমন দেশ ?

নিজেকে মানুষ বলে পরিচয় দিতে ঘৃণা হচ্ছে, এই দেশে আর মানুষ হয়ে উঠলোনা। মানুষগুলো আর মানুষ হলোনা। আমি আপনি অমানুষই থেকে গেলাম।

যশোরের কেশবপুরের অত্যন্ত দরিদ্র পরিবারে মা, ছোট ভাই বোনকে নিয়ে বসবাস করতো ছেলেটি। বয়স ১২ কি ১৩, একটি ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা চালিয়ে মা আর ছোট দুটো ভাই বোন নিয়ে কোন রকম চলে যেতো।

মাদকসেবি কিছু বখাটে তার রিকশাটিকে ছিনতাই করে নিয়ে যেতে চাইলে ছেলেটি বাঁধা দিলে তাকে কুপিয়ে জখম করে পৃথিবী সমান কষ্ট পেয়ে ছেলেটি মারা যায়।

আমরা এই ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। উপযুক্ত বিচারের দাবি জানাচ্ছি।

1
$
User's avatar
@Mdemon456 posted 1 month ago

Comments